1. admin@dainikjamunaexpress.com : admin :
শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ১১:২৫ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
বাগবাটি রাজিবপুর অটিস্টিক ও বুদ্ধি প্রতিবন্ধী স্কুলে হুইল চেয়ার বিতরণ বেলকুচিতে পৌর মেয়রসহ তার শিশু সন্তানকে হত্যার উদ্দেশ্য হামলা,হামলাকারীদের গ্রেফতারের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল আটোয়ারীতে পুলিশ সদস্যের পরিবারকে মারধর, আহত ৩ সিরাজগঞ্জ পৌরসভার কর্মচারী ইউনিয়নের সভাপতি হান্নান খান, সম্পাদক আল আমিন সিরাজগঞ্জে সাংবিধানিক ও আইনগত অধিকার বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত বেলকুচিতে শিশু সন্তানসহ পৌর মেয়র উপর হামলার এমপির এপিএসসহ ৬০জনের বিরুদ্ধে মামলা কাজিপুরে শিক্ষকের হাতে ধর্ষিত প্রতিবেশী নারী কুষ্টিয়ায় আনসার নিয়োগ ডিউটিতে কোটি টাকার বাণিজ্য সিরাজগঞ্জে কাভার্ডভ্যান ভর্তি গাঁজাসহ দুই মাদক কারবারীকে আটক করেছে র‌্যাব বেলকুচিতে সাংবাদিকের উপর হামলা,মুঠোফোন ছিনিয়ে নিয়ে যায় সংবাদ প্রকাশ করলে প্রাণনাশের হুমকি

ধর্মপাশায় কোভিড – ১৯ সংক্রমিত ডাক্তার স্বাস্থ্য বিধি না মেনে সেবা দিচ্ছেন রোগীদের

  • প্রকাশিত : শনিবার, ৮ জুলাই, ২০২৩
  • ৮৭ বার পড়া হয়েছে

সোহান আহমেদ (ধর্মপাশা,সুনামগঞ্জ) সুনামগঞ্জের   ধর্মপাশা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মোসতানশির বিল্লাহ করোনা ভাইরাস (কোভিড ১৯পজিটিভ) সংক্রমিত হয়েও স্বাস্থ্যবিধি না মেনে গত বৃহস্পতিবার সকাল থেকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নিতে আসা রোগী ও ভর্তি থাকা রোগীদের চিকিৎসা সেবা দিয়ে আসছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। এ নিয়ে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নিতে আসা রোগী ও সেখানে ভর্তি থাকা রোগী এবং তাঁদের সঙ্গে থাকা লোকজন কোভিড ১৯ সংক্রমিত হওয়ার আতঙ্ক বিরাজ করছে।

 

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স সূত্রে জানা গেছে , ধর্মপাশা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মোসতানশির বিল্লাহ গত ২৯ জুন সর্দি ও জ্বরে আক্রান্ত হন। পরে ৩ জুলাই সকালে তিনি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে করোনাভাইরাসের পরীক্ষা করালে তাঁর শরীরের কোভিড ১৯ পজেটিভ ধরা পড়ে। তিনি করোনামুক্ত না হয়েই স্বাস্থ্য বিধি না মেনে ৬ জুলাই সকাল থেকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে জরুরি বিভাগে চিকিৎসা নিতে আসা রোগী ও হাসপাতালে ভর্তি থাকা রোগীদের চিকিৎসা সেবা দিয়ে আসছেন।এমনকি হাসপাতালের নিজ কক্ষে বসে দাপ্তরিক কাজকর্মও চালিয়ে আসছেন। এতে করোনা ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে।

 

প্রত্যক্ষদর্শী কয়েকজন জানান, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা.মোসতানশির বিল্লাহ নিজেই করোনায় আক্রান্ত।এ অবস্থায় তাঁর রোগী দেখা ও অফিসে বসে দাপ্তরিক কাজ করার বিষয়টি হটকারিতা ছাড়া আর কিছুই নয়।এতে করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার সম্ভাবনা রয়েছে।উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ এ ব্যাপারে সুদৃষ্টি দেওয়া প্রয়োজন। উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মোসতানশির বিল্লাহ সাংবাদিকদের বলেন, আমি করোনায় আক্রান্ত হয়েছি এক সপ্তাহ হয়ে গেছে।তাই দ্বিতীয়বার পরীক্ষা করানোর প্রয়োজন নেই। রোগী দেখিনি,তবে জরুরি কিছু কাজ ছিল যা অফিসে বসে করেছি। তাছাড়া এখন আমি পুরোপুরি সুস্থ।

 

ধর্মপাশার ইউএনও শীতেষ চন্দ্র সরকার বলেন, আমি উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তার সঙ্গে এ নিয়ে কথা বলেছি। তাছাড়া তিনি একজন চিকিৎসক,তাঁকে তো এ নিয়ে আমি আর পরামর্শ দিতে পারি না।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
এই নিউজ পোর্টালের কোন ছবি বা তথ্য বিনা অনুমতিতে হস্তান্তর নিষেধ। সর্বস্বত্ত্ব www.jamunaexpress.com কর্তৃক সংরক্ষিত
Theme Customized By BreakingNews